বর্তমানে লাখো শিক্ষার্থী ও তরুণ-তরুণীর অন্যতম স্বপ্নের নাম বিসিএস। লাখ লাখ পরিক্ষার্থীকে পেছনে ফেলে সফল হয়ে জয়ের মুকুট পরা জন্য  প্রয়োজন সুপরিকল্পিত প্রস্তুতি। বিসিএসে সাফল্যের পেতে “বাংলা ভাষা ও সাহিত্য” মূল চাবিকাঠি হিসেবে কাজ করতে পারে। জেনে নেয়া যাক বিসিএস প্রিলির “বাংলা ভাষা ও সাহিত্য” বিষয়ে প্রস্তুতি কৌশল।

বিসিএস প্রিলিতে বাংলা ভাষা ও সাহিত্যবিষয়ে মোট ২০০ প্রশ্নের মধ্যে এই বিষয়ে ৩৫টি প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে। পূর্বের বিসিএস গুলিতে ২০ টি প্রশ্নের উত্তর দিতে হত। বিসিএস এ ভালো ফলাফল করার জন্য বাংলায় ভালো করার গুরুত্ব অপরিসীম। এই বিষয়ে বাংলা সাহিত্য অংশের জন্য ২০ নম্বর এবং বাংলা অংশের জন্য ১৫ নম্বর থাকে।

বাংলা সাহিত্য অংশ.

(১) বাংলা ভাষার ইতিহাস, বাঙ্গালা ও বাঙ্গালী, বাংলা ভাষা ও লিপি

যে কোন একটি গাইড বই থেকে এই অংশের প্রয়োজনীয় তথ্য সমূহ পড়ে নিন। পাশাপাশি ব্যাখ্যাসহ বিগত বছরের প্রশ্ন সমূহ ভালোভাবে আত্মস্থ করুন।

(২) বাংলা ভাষার যুগ বিভাগ

 

   i. প্রাচীন যুগ ও বাংলা সাহিত্য

প্রাচীন যুগের প্রথমিক তথ্যের পাশাপাশি, চর্যাপদের আদ্যোপান্ত দেখে নিন। প্রথমে যে কোন একটি গাইড বই থেকে প্রয়োজনীয় তথ্যসমূহ পড়ে নিতে পারেন। বিস্তারিত জানার জন্য হুমায়ুন আজাদ রচিত “লাল নীল দীপাবলি” বইটি পড়তে পারেন। বিগত বছরের প্রশ্নগুলো গুরুত্ব দিয়ে পড়ুন।

ii. মধ্যযুগ ও বাংলা সাহিত্য:  

মধ্যযুগের জন্য শ্রীকৃষ্ণকীর্তন কাব্য, মঙ্গলকাব্য, বৈষ্ণব পদাবলী, মুসলিম সাহিত্য, অনুবাদ সাহিত্য ও গীতিকা গুরুত্ব দিয়ে পড়তে হবে।  প্রয়োজনীয় তথ্যসমূহের জন্য যে কোন একটি গাইড বই অনুসরণ করতে পারেন। বিস্তারিত জানার জন্য ড. সৌমিত্র শেখর রচিত  “বাংলা ভাষা ও সাহিত্য জিজ্ঞাসা” বইটি  দেখতে পারেন। বিগত বছরের প্রশ্নগুলোও গুরুত্ব দিয়ে পড়ুন।

    iii. আধুনিক যুগ ও বাংলা সাহিত্য: 

বাংলা সাহিত্যে তিনটি যুগের মধ্যে আধুনিক যুগের সিলেবাস সবচেয়ে বড় এবং এবং অনেক কবি-সাহিত্যিকের তথ্য মনে রাখতে হয়।

০১. গদ্যের কথা এবং ফোর্ট উইলিয়াম কলেজের প্রয়োজনীয় তথ্যসমূহের জন্য যে কোন একটি গাইড বই অনুসরণ করুন।

COVER

GREC’s BCS & Bank Job Preparation

০২. আধুনিক যুগের  কবি-লেখক: কবি-লেখকদের জীবনীর জন্য গুরুত্বপূর্ন কবি-লেখকদেরর তলিকা দেয়া হলো:

ক. পিএসসি নির্ধারিত ১১ জন কবি-সাহিত্যিক:  বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়, ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর, মাইকেল মধুসূদন দত্ত, মীর মশাররফ হোসেন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর, দীনবন্ধু মিত্র, কাজী নজরুল ইসলাম, জসীম উদ্দীন, ফররুক আহমদ, কায়কোবাদ এবং বেগম রোকেয়া সাখাওয়াত হোসেন

আধুনিক যুগের কবি লেখকদের মধ্যে রবীন্দ্রনাথ এবং কাজী নজরুল ইসলাম থেকে প্রশ্ন থাকবেই।

      খ. পঞ্চকবিরা হলেন: বুদ্ধদেব বসু, জীবনানন্দ দাস, বিষ্ণু দে, সুধেন্দ্রনাথ দত্ত এবং অমিয় চক্রবর্তী

      গ. শহীদ বুদ্ধিজীবী (সাহিত্যিক): আনোয়ার পাশা, জহির রায়হান, মুনীর চৌধুরী, শহীদুল্লা কায়সার, সেলিনা পারভীন

      ঘ. মাধ্যমিক (ষষ্ঠ – নবম/ দশম) শ্রেণীর বাংলা বইয়ের লেখক পরিচিতি: অজিত কুমার গুহ, আনিসুজ্জামান,  আনোয়ারা সৈয়দ হক,  আব্দুল হাকিম,  আবু ইসহাক,  আবু বক্কর সিদ্দিক;  আবুল মনসুর আহমদ, আবুল হোসেন, আব্দুল গাফফার চৌধুরী, আমিরুল ইসলাম, আল মাহমুদ, আহসান হাবিব, এ কে শেরাম, এস. ওয়াজেদ আলী, কায়কোবাদ, গোলাম মোস্তফা, গৌরীপ্রসন্ন মজুমদার,  জহির রায়হান, জাহানারা ইমাম, নির্মলেন্দু গুণ, লীলা মজুমদার, প্রমথ চৌধুরী, ফররুখ আহমদ, বলাইচাঁদ মুখোপাধ্যায়, বিভূতিভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায়, মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়, মামুনুর রশিদ, মোঃ আব্দুল হাই, মোহাম্মদ শহিদুল্লাহ, মোতাহার হোসেন চৌধুরী, মোহাম্মদ ওয়াজেদ আলী,মোহাম্মদ নাসির আলী,মোহাম্মদ লুৎফর রহমান, যতীন্দ্রমোহন বাগচী, রণেশ দাশগুপ্ত, রফিক আজাদ, শামসুজ্জামান খান, শামসুর রহমান, সত্যেন্দ্রনাথ দত্ত, সিকান্দার আবু জাফর, সুকান্ত ভট্টাচার্য, সুকুমার রায়, সুফিয়া কামাল, সেলিনা হোসেন, সৈয়দ মুজতবা আলী, শেখ সামসুল হক, হাসান আজিজুল হক, হাসান হাফিজুর রহমান, হায়াৎ মামুদ, হুমায়ুন আজাদ এবং হুমায়ূন আহমে

মাধ্যমিকের সিলেবাসের কবি-সাহিত্যিকদের অধিক গুরুত্ব দিয়ে পড়ুন।

     ঙ. আধুনিক যুগের অন্যান্য লেখক – কবিগণ: অচিন্ত্যকুমার সেনগুপ্ত, অতুলপ্রসাদ সেন,অদ্বৈত মল্লবর্মণ, অন্নদাশঙ্কর রায়, আখতারুজ্জামান ইলিয়াস, আনোয়ার পাশা, আব্দুল কাদির, আব্দুল মান্নান সৈয়দ, আব্দুল্লাহ আল মামুন, আবু জাফর ওবায়দুল্লাহ, আবু জাফর শামসুদ্দীন, মোস্তফা কামাল, আবুল ফজল, আবুল হাসান, আলাউদ্দিন আল আজাদ, আহমদ শরীফ,কাজী আবদুল ওদুদ, কামরুল হাসান, কামিনী রায়, কালীপ্রসন্ন সিংহ, কুসুমকুমারী দাশ, কৃষ্ণচন্দ্র মজুমদার, গিরিশচন্দ্র সেন, গোবিন্দ চন্দ্র দাস, চন্দ্রকুমার দে, জগদিশ গুপ্ত, তারাশঙ্কর বন্দ্যোপাধ্যায়, দক্ষিণারঞ্জন মিত্র মজুমদার, দ্বিজেন্দ্রলাল রায়, নীলিমা ইব্রাহিম,পঞ্চানন কর্মকার, বন্দে আলী মিয়া, মীর মশাররফ হোসেন চৌধুরী, লালন শাহ, আলী হোসেন, শহীদ কাদরী, সতীনাথ ভাদুড়ী, শাহ আব্দুল করিম, সমর সেন, সমরেশ বসু, সিকান্দার আবু জাফর, সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী, সুকুমার রায়, সুনীতিকুমার চট্টোপাধ্যায়, সেলিম আল দীন, আহামদ ছফা

০৩. কবি-লেখকদের জন্ম-মৃত্যু সাল, জন্মস্থান, উল্লেখযোগ্য রচনা, সম্পাদিত পত্রিকা, পত্রিকার নাম, ছদ্মনাম  এবং উপাধি পড়তে হবে। এছাড়াও মুক্তিযুদ্বভিত্তিক রচনা, উপন্যাসের পাশাপাশি শিশুতোষ গ্রন্থ, ভ্রমণ কাহিনী, প্রহসন, নাটকের  প্রয়োজনীয় তথ্যসমূহ জানা প্রয়োজন।

০৪. বাংলা সাহিত্যের প্রথম প্রথম নাটক, প্রথম উপন্যাস, গীতিকাব্য,  বাংলা অনুবাদ, সামাজিক নাটক, বাংলা ভাষায় প্রকাশিত প্রথম সাময়িকী, ট্রাজেডি নাটক,একুশের কবিতা, প্রথম নাট্যকার ইত্যাদি জানা প্রয়োজন।

 

বাংলা ভাষা অংশ .

টপিকসমূহ: প্রয়োগ-অপপ্রয়োগ, বানান ও বাক্যশুদ্ধি, পরিভাষা, সমার্থক ও বিপরীতার্থক শব্দ, ধ্বনি, বর্ণ, শব্দ, পদ, বাক্য, প্রত্যয়, সন্ধি এবং সমাস।

কারক সিলেবাসে না থাকলেও  বিসিএস প্রিলিতে এই টপিক প্রশ্ন করতে দেখা যায়।

০১. ধ্বনি, বর্ণ, শব্দ, পদ, বাক্য, প্রত্যয়, সন্ধি এবং সমাস এই  টপিকসমূহর জন্য বাংলা ভাষার ব্যাকরণ; নবম দশম শ্রেণি (বোর্ড বই) গুরুত্ব দিয়ে পড়ুন। অনুশীলনের জন্য যে কোন গাইড অনুসরন করুন।

০২. প্রয়োগ-অপপ্রয়োগ, বানান ও বাক্যশুদ্ধি, পরিভাষা, সমার্থক ও বিপরীত শব্দের  জন্য হায়াৎ মামুদ রচিত “ভাষা শিক্ষা” বই থেকে পড়ুন ও অনুশীলনের জন্য যে কোন গাইড বই অনুসরন করুন।

 

Comments

comments